বিশ্বের সবচেয়ে ভয়ঙ্কর ভিডিও গেম ‘দুঃখিত শয়তান’ !!!

share us:
0

তরুণদের ইন্টারনেট এবং গেমিংয়ে আসক্তি বিশ্বজুড়ে একটি বড় চিন্তার বিষয়। টানা সত্তর ঘন্টা গেম খেলে মৃত্যুর ঘটনাও ঘটেছে কোরিয়াতে।

বাংলাদেশের নতুন প্রজন্মেও কিন্তু গেমিং আসক্তি প্রবল। বিভিন্ন দেশে নানা দিক বিশ্লেষণ করে এই সমস্যার সমাধান খুঁজছে। ঠিক তখন নেট ম্যানিয়ার আক্রান্ত আইরিশ যুবক জেমি ফারেল করছেন অন্য একটি কাজ। তার এক অদ্ভূত নেশা রয়েছে, ভার্চুয়াল জগতের ডার্কেস্ট ফ্যাক্ট গুলিকে খুঁজে বের করা।

এই নেশার তাগিদেই ইন্টারনেট ঘাঁটতে ঘাঁটতে একদিন তার নজরে পড়ে এক অদ্ভুত ভিডিও গেম। নাম ‘স্যাড স্যাটান’। বাংলায় যার মানে দাঁড়ায় ‘দুঃখিত শয়তান’। বিশ্বের সবচেয়ে ভয়ঙ্কর এই গেম। যারা খেলেছে, এই দাবিই করেছেন।

আজ অবধি কেউ জানে না, কে তৈরি করেছিলেন এই গেমটি।

জেমি নিজে একজন ভিডিও গেম ফ্রিক। কিন্তু, এই খেলাটি খেলতে গিয়ে মানসিকভাবে বিপর্যস্ত হয়ে গিয়েছিলেন তিনি। এর মাত্র পাঁচটি পর্ব ইউটিউবে আপলোড করতে পেরছিলেন জেমি। তাতেই জীবন দুর্বিসহ হয়ে উঠেছিল তার। সব সময় মনে হত যেন গেমের কাল্পনিক চরিত্ররা বাস্তবেও তাকে তাড়া করে বেড়াচ্ছে

 

সূত্র – কালের কন্ঠ

Editor

i am a journalist and children organza

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *